তৃতীয় রঙের মতো: সব্যসাচী মজুমদার

0
76

তৃতীয় রঙের মতো শিশু বেড়ালেরা ঢুকে পড়েছিল বলে
তুমিও ছায়ার উল্টো দিকে বসে প্রত্যাশিত জমির দখলে
নেমে পড়তে গিয়ে দেখো গোল গোল থাবা ঢুকে গেল কোলে কাঁখে
এবং বেরালে নিয়ে সেই সব শিকারীর স্তনযন্ত্রণাকে
যাতনা মানে তো মুখে অচেনা স্বাদের আনাগোনা চলে আর
শ্রাবণ মাসের মধ্যে রেখে আসা ছোট ছোট পাগল পাহাড়

পাহাড়ের ফুল দোলে, মেয়ে কাঁদে ,ছেলে মোছে, পশুগন্ধ বয়…
তুমি কি বুঝেছ প্রিয়, জঙ্গলের মতো ভাবলে,সকলই প্রণয়!

সকলই দূরের মতো।সাদাটে ময়লা মেশানো। আমাদের ভাত…
আমাদের ভাত লিখি।চাঁদ অস্ত গেলে লিখি শিশুদের দাঁত…
কামড় অংশত পড়ে জলের নিচুতে একা, ওপরে দলীয়।
এক বাটি তুলে নিয়ে আজ তবে অবেলার রান্না সেরে নিও

তৃতীয় রঙের মতো বেড়ালেরা ঢুকে পড়লে কান্না ভেঙে যায়
ফেরোনি কার‌ওর কাছে।ফেরা বলতে,নোনা ঢেউ, তোমাকে বোঝায়…