সন্দীপন চক্রবর্তীর কবিতা

0
245
Sandipan Chakrabarty

সন্দীপন চক্রবর্তী (Sandipan Chakrabarty)

অবৈধ স্রোত

কুর্তি গায়ে ফূর্তি এলো নেচে

যদি ফিরতে পারি বেঁচে
এটুক লিখে রাখবো–
তোমায় ভালোবেসেছিলাম

খেয়াল হতেই
হাজার ভয়ে নিজেই নিজের
টিপে ধরছি গলা

চোখের পাতা শুকনো নদী
হঠাৎ রজস্বলা

ঝাঁপাতে গিয়ে তুমি
থমকে গেলে;
বুঝলে কিছু
ঘটেছে গোলমেলে

কথা ছাড়াই বসলে এসে পাশে
হাত ডোবালে স্রোতে–
আঙুল তোমার ছন্দ পেলেই নাচে

হাত তুললে

স্মৃতির ভিতর
থোকায় থোকায় অপারগতা…

রক্ত লেগে আছে

হিংস্র

মানুষ মানুষের মাংস প্রকাশ্যে খায় না, অথচ গোপনে
পারলে এ ওর বুকে থাবা মেরে কলজে ছিঁড়ে নেয়।
সনাতন এই রীতি ; স্থান কাল পাত্র বিশেষে
শুধু তার ঢং বদলায়

আমার কলজে আমি হাতে বার করে বসে আছি।
কে শত্রু কে মিত্র আছো? এসো, বসাও নশ্বর দাঁত;
পিছনে ভোজালি হাতে দাঁড়িয়ে থেকো না

শব্দের ভেতরে এক সুদীর্ঘ টানেল আমি খুঁড়েই রেখেছি
তোমাদের দাঁত নখ সেইখানে প্রতিহত হয়ে ফিরে আসে…

মানুষ মানুষের মাংস না খেলেও
ছিঁড়ে নিতে চায়, ভালোবাসে